নিষিদ্ধ’ হতে যাচ্ছেন কোহলি

ভারতীয় ক্রিকেট দলের অধিনায়ক বিরাট কোহলি নিষিদ্ধ হচ্ছেন। গত রবিবার দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে সিরিজের তৃতীয় টি-২০’তে পেসার বিউরেন হ্যান্ডিকসকে উদ্দেশ্যপূর্ণভাবে ধাক্কা দেয়ায় নিষেধাজ্ঞার খুব কাছে চলে এসেছেন তিনি।

যদিও ব্যাঙ্গালুরুতে সিরিজের তৃতীয় টি-টোয়েন্টিতে ৯ উইকেটের বড় ব্যবধানে জিতেছে দক্ষিণ আফ্রিকা। ওই ম্যাচে ২ উইকেট নেন বিউরেন হেনড্রিকস। প্রোটিয়া এই পেসারের সঙ্গেই ম্যাচের এক পর্যায়ে লেগে গিয়েছিল কোহলি। রাগ নিয়ন্ত্রণ করতে না পেরে তার সঙ্গে কাঁধে ধাক্কাধাক্কি লাগিয়ে দেন ভারতীয় দলপতি।

আইসিসির কোড অব কন্ডাক্টের লেভেল ওয়ান ভঙ্গের দায়ে কোহলিকে একটি ডিমেরিট পয়েন্ট এবং অফিসিয়াল ওয়ার্নিং দেয়া হয়েছে। ২০১৬ সালের সেপ্টেম্বরে আইসিসির আচরণবিধি আইন সংশোধনের পর এ নিয়ে তৃতীয়বারের মতো সেটা ভাঙলেন কোহলি। আরেকবার এমন ভুল করলেই হবেন নিষিদ্ধ।
গত বছর সেঞ্চুরিয়ানে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে টেস্ট সিরিজে অন ফিল্ড আম্পায়ারের সঙ্গে বাকবিতণ্ডায় ম্যাচ ফির ২৫ শতাংশ জরিমানা গুণতে হয়েছিল কোহলিকে। পেয়েছিলেন ডিমেরিট পয়েন্টও। এছাড়াও, জুনে ইংল্যান্ড বিশ্বকাপে আফগানিস্তানের বিপক্ষে ম্যাচে অতিরিক্ত আবেদন এবং আম্পায়ারকে লক্ষ্য করে আগ্রাসী আচরণ করায় আবারও একটি ডিমেরিট পয়েন্ট পান কোহলি।

আইসিসির নিয়ম অনুযায়ী, খেলোয়াড়দের এই ডিমেরিট পয়েন্টের হিসেব দুই বছর পর্যন্ত কার্যকর থাকবে। সেক্ষেত্রে ২৪ মাসের মধ্যে ৪ বা তার অধিনায়ক ডিমেরিট পয়েন্ট পেয়ে যান কোহলি, তবে সেটি হয়ে যাবে সাসপেনশন পয়েন্ট। তাতে নেমে আসবে নিষেধাজ্ঞার খড়গ।

This entry was posted in Uncategorized. Bookmark the permalink.

Leave a Reply